No icon

বগুড়ায় আর্জেন্টিনার চেয়ে বড় পতাকা নিয়ে হাজির ব্রাজিল সমর্থকেরা

বাংলাদেশ থেকে প্রায় ১৫ হাজার ৯৩৭ কিলোমিটার দূরে ব্রাজিলের অবস্থান। যদিও কোনো কোনো তথ্যে দূরত্বের এ হিসাবে কিছু কমবেশি রয়েছে। তবে দূরত্ব যা-ই হোক, ফুটবল যেন এক করে দিয়েছে দুই দেশের সমর্থকদের। দূরত্ব ছাপিয়ে ব্রাজিল ফুটবল দলের প্রতি ভালোবাসা আর বাঁধভাঙা উচ্ছ্বাস নিয়ে বিশ্বকাপ ফুটবল উন্মাদনার ঢেউ এসে লেগেছে বাংলাদেশের উত্তরাঞ্চলের শহর বগুড়ার হাজারো সমর্থকদের হৃদয়ে।

বগুড়ায় ব্রাজিল দলের প্রতি শুভকামনা জানিয়ে প্রায় ২৫০ ফুট দীর্ঘ পতাকা নিয়ে ব্রাজিলের জার্সি গায়ে দিয়ে, শরীরে উলকি আঁকিয়ে, রং মাখিয়ে, মোটরসাইকেলে করে ও হেঁটে শোভাযাত্রা করেছেন কয়েক হাজার ব্রাজিল-ভক্ত।

খেলার মধ্যে যাঁরা শুধুই আনন্দ খোঁজেন, তাঁরা এ ঘটনায় বেশ আনন্দ পেয়েছেন। মাত্র এক দিন আগে গতকাল মঙ্গলবার সেখানে আর্জেন্টিনা দলের সমর্থকেরা ২০০ ফুট দৈর্ঘ্যের পতাকা নিয়ে শোভাযাত্রা বের করেছিলেন। তাই এটাকে পাল্টাপাল্টি হিসেবেই দেখছেন অনেকে। এ যেন আর্জেন্টিনা সমর্থকদের টেক্কা দেওয়া। তাই তো আর্জেন্টিনা সমর্থকদের চেয়ে আরও বড় ২৫০ ফুট দৈর্ঘ্যের পতাকা নিয়ে আজ শোভাযাত্রা করেছেন ব্রাজিল সমর্থকেরা। ব্রাজিল সমর্থকদের দাবি, আজ তাঁদের শোভাযাত্রা বের করার খবর জেনে যাওয়ায় আর্জেন্টিনা সমর্থকেরা তাঁদের টেক্কা দিতে আগেভাগে গতকাল মিছিল করে ফেলেছেন। 

বিশ্বকাপ ফুটবলের পর্দা ওঠার এক দিন আগে আজ বুধবার বেলা ১১টায় শহরের আলতাফুন্নেছা খেলার মাঠ থেকে বের হয় শোভাযাত্রা। এতে অংশ নেওয়া ব্রাজিল সমর্থকদের বেশির ভাগের পরা ছিল ব্রাজিল ফুটবল দলের জার্সি, হাতে ছিল ব্রাজিল ও বাংলাদেশের জাতীয় পতাকা। শোভাযাত্রার সামনে এক সমর্থকের হাতে ছিল ডামি চ্যাম্পিয়ন ট্রফি।
শোভাযাত্রায় বড় পতাকা ছিল তিনটি। শোভাযাত্রাটি শহরের আলতাফুন্নেছা খেলার মাঠ থেকে ইয়াকুবিয়া স্কুল মোড়, শেরপুর সড়ক, সাতমাথা, থানা মোড় ও নবাববাড়ি সড়ক হয়ে আলতাফুন্নেছা খেলার মাঠে গিয়ে শেষ হয়। শহর প্রদক্ষিণের সময় ব্রাজিল সমর্থকেরা ভেঁপু ও বাঁশি বাঁজিয়ে, ‘ব্রাজিল ব্রাজিল’ বলে উল্লাস প্রকাশ করেন। এ সময় শহরের রাস্তার দুই পাশের পথচারীদের কেউ কেউ ব্রাজিল সমর্থকদের সঙ্গে সেলফি তুলে তাঁদের উৎসাহ দেন। সমর্থকদের গালে ও কপালে ছিল ব্রাজিলের পতাকা আঁকা। শোভাযাত্রায় অংশ নেওয়া বেশির ভাগই স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী।

বগুড়া শহরে ব্রাজিল ফুটবল দলের সমর্থকদের আনন্দ মিছিল। সাতমাথা, বগুড়া, ১৩ জুন। ছবি: সোয়েল রানাবগুড়া শহরে ব্রাজিল ফুটবল দলের সমর্থকদের আনন্দ মিছিল। সাতমাথা, বগুড়া, ১৩ জুন। ছবি: সোয়েল রানাব্রাজিল সমর্থক ও শহরের বিয়াম মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজের নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী মোরছালিন বলে, ফুটবলের গুরু পেলের দল ব্রাজিল। এই দলের কোনো তুলনা হয় না। রাশিয়া বিশ্বকাপের শিরোপাও ব্রাজিলের ঘরেই যাবে। তাদের ফুটবল নৈপুণ্য অসাধারণ ও দুর্দান্ত। ফেসবুকের মাধ্যমে ব্রাজিল সমর্থকদের একটা গ্রুপ পেজ খোলা হয়েছে। বিশ্বকাপ শুরুর এক দিন আগেই ব্রাজিল দলকে শুভকামনা জানিয়ে শোভাযাত্রা বের করার কথা জানানো হয়েছিল সেই পেজে।

মোরছালিনের দাবি, সেই খবর জেনে যায় আর্জেন্টিনার সমর্থকেরা। তাই তাঁরা এক দিন আগেই শোভাযাত্রা বের করেন। 
তবে তাঁর মতে, এই শোভাযাত্রাতে প্রমাণিত হয়েছে ব্রাজিলই সেরা। ব্রাজিলের প্রতি ভালোবাসার শোভাযাত্রা ছিল বিশাল ও বর্ণাঢ্য। কয়েক হাজার জার্সি কেনা হয়েছিল। হাতে হাতে ছিল বাংলাদেশ ও ব্রাজিলের ছোট ছোট পতাকা।

শোভাযাত্রায় অংশ নেওয়া সরকারি আজিজুল হক কলেজের সম্মান শ্রেণির শিক্ষার্থী পার্থ সারথি বলেন, বিশ্বকাপ ফুটবলে ব্রাজিলই সেরা। কারণ, এই দলে রয়েছেন ফুটবল জাদুকর নেইমার ও থিয়াগো সিলভার মতো দুর্দান্ত তারকা।

সূত্রঃ প্রথম আলো 

Comment